রেডাং দ্বীপ, মালয়েশিয়া

এপ্রিল ১২, ২০১৬ থেকে এপ্রিল ১৫, ২০১৬

মেরাং থেকে ফেরি নিয়ে আমরা আসলাম রেডাং দ্বীপে। এক অসাধারন দ্বীপ। সাদা বালুর বিচ যাতে হাঁটলে মনে হয় তুলার উপর দিয়ে হাঁটছি।

ফেরির জন্য অপেক্ষা
ফেরিতে করে যাত্রা
ফেরি থেকে নেমে হোটেলের গাড়ির জন্য অপেক্ষা
সিনান রিলাক্সিং
আমাদের হোটেল
সিনান প্রতিটা চেয়ারে বসে চেক করছে
হোটেল এরিয়া
পুল এরিয়া

হোটেলে এসে হোটেল দেখে আর তুলার মত সাদা বালির বিচ আর নীল স্বচ্ছ পানি আর তাতে রং বেরঙের মাছের দৌড়া দৌড়ি দেখে আমরা সবাই মুগ্ধ।

বিচ এরিয়া
বিচ এরিয়া

রাতে হেঁটে হেঁটে বিচ সাইডে বেশ কয়েকটা রেস্টুরেন্ট দেখতে পেলাম। সেখানেই একটা রেস্টুরেন্ট এ খাবার খেয়ে নিলাম।

রাতে খাবারের খোঁজে
বালুতে চমৎকার করে আগুন জ্বালানো

পরদিন আমরা গেলাম স্নরকেলিং ট্রিপে।

স্নরকেলিং এর জন্য প্রস্তুতি
স্নরকেলিং এর জন্য প্রস্তুতি
বিচ এরিয়া

স্নরকেলিং ট্রিপ থেকে ফিরে এসে আমরা বিচে নেমে গেলাম।

পানিতে দাপাদাপি
দূরে দাঁড়িয়ে থাকা বোট
স্বচ্ছ নীল পানি আর সাদা বালু
আমাদের হোটেল
আমাদের হোটেল
স্বচ্ছ পানিতে সুইমিং
স্বচ্ছ পানিতে সুইমিং
এক চমৎকার জায়গা
বিচ চেয়ার আর ছাউনি
বিচ চেয়ার আর ছাউনি

বেশ কিছুক্ষণ সমুদ্রে দাপাদাপির পর ক্লান্ত সিনান আর আফরিন

সিনান আর আফরিন
দুপুরের খাবার খোঁজে
দুপুরের খাবার খোঁজে
বিচ এরিয়া
বিচ এরিয়া
বিচ এরিয়া
বিচ এরিয়া
বিচ এরিয়া
বিচ এরিয়ায় রেস্টুরেন্ট
দুপুরের খাবার
বিশ্রামের জায়গা
বিশ্রামের জায়গা
সিনান বিশ্রাম নিচ্ছে
রাতে রেস্টুরেন্ট এরিয়া
বিচ কন্সার্ট
ফানুশ উড়াচ্ছি
ফানুশ উড়াচ্ছি

পরদিন আমরা গেলাম পেরহেন্তিয়ান দ্বীপে।